TRENDING NOW

জনপ্রিয় অনলাইন: জেরুজালেমে (বায়তুল মুকাদ্দাস) ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর পদত্যাগের দাবিতে দেশটি এখন উত্তাল। গতকাল শনিবার রাতে নেতানিয়াহুর পদত্যাগ দাবিতে তার বাসভবনের সামনে জড়ো হন প্রায় ১০ হাজার বিক্ষোভকারী।

জার্মান সংবাদসংস্থা ডয়েচে ভেলের এক প্রতিবেদনে এই খবর জানানো হয়েছে।

ক্ষমতা গ্রহণের পর এটিই তার বিরুদ্ধে সবচেয়ে বড় বিক্ষোভ এটি। বিক্ষোভ দমাতে ব্যাপক ধরপাকড় চালিয়েছে নিরাপত্তা বাহিনী।

দুর্নীতিতে জড়িত থাকার কারণে বহু দিন ধরেই ইসরায়েলে তার বিরুদ্ধে বিক্ষোভ হচ্ছে, তবে সম্প্রতি তার ব্যর্থতার পাল্লায় যোগ হয়েছে করোনাভাইরাস ইস্যু।

বিক্ষোভকারীরা বলেছেন, নেতানিয়াহু করোনাভাইরাস পরিস্থিতি মোকাবিলার ক্ষেত্রেও চরম ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছেন।

বিক্ষোভকারীরা নেতানিয়াহুকে ‘ক্রাইম মিনিস্টার’ আখ্যা দিয়েও তার পদত্যাগের দাবিতে বিভিন্ন স্লোগান দেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে বিক্ষোভকারীদের ওপর চড়াও হয় পুলিশ।

আন্দোলকারীদের সঙ্গে তাদের ধস্তাধস্তি শুরু হয়েছে। কয়েকজন বিক্ষোভকারীকে আটক করা হয়েছে। তবে নেতানিয়াহু পদত্যাগ না করা পর্যন্ত আন্দোলন অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছে বিক্ষোভকারীরা।

বিক্ষোভ সমাবেশে অংশগ্রহণকারী একজন গণমাধ্যমকে বলেন, ‘নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে এ যাবতকালের সবচেয়ে বড় বিক্ষোভ এটা। তাকে বলতে চাই, যথেষ্ট হয়েছে, এবার সম্মান থাকতে পদত্যাগ করুন। তিনি একজন দুর্নীতিবাজ। তিনি দেশের নেতৃত্ব দেয়ার যোগ্যতা হারিয়েছেন। তিনি জনগণের সঙ্গে প্রতারণা করেছেন।’

জেরুজালেমের পাশাপাশি এদিন তেল আবিব ও কিয়াসারা শহরেও নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে বিক্ষোভ হয়।

জনপ্রিয় অনলাইন: কক্সবাজারের টেকনাফ থানার সদ্য সাসপেন্ড হওয়া ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা হত্যামামলার আসামি ওসি প্রদীপ কুমার দাশ চট্টগ্রামের চন্দনাইশ উপজেলার কাঞ্চনাবাদ এলাকার আজাদ ও তার ভাই ফারুককে টেকনাফ থানায় ধরে নিয়ে ফোন করে ৮ লাখ টাকা দাবি করেছিলেন। টাকা দিতে না পারলে তাদের ‘ক্রসফারারে’ হত্যা করা হবে বলে হুমকিও দিয়েছিলেন।

গত ১৫ জুলাই রাতে টেকনাফের জালিয়াপাড়ায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধের নামে গুলি করে হত্যা করা হয় আজাদ ও ফারুককে। তাদের হত্যা করিয়েছেন প্রদীপ কুমার দাশ। এসব অভিযোগ নিহতদের বোন আইরিন আকতারের। গতকাল আলাপকালে তিনি এ অভিযোগ করেন।

আইরিন আক্তার বলেন, তার ভাই আজাদ দীর্ঘদিন বিদেশে ছিল। গত ৬ রমজান দেশে আসে। বড়ভাই ফারুক দেশে মোবাইল সার্ভিসিংয়ের কাজ করতেন। পাশাপাশি তারা স্থানীয়ভাবে পেয়ারা বাগান করতেন। ফারুক ও আজাদ ইয়াবার কারবারে কখনো জড়িত ছিলনা।

আইরিন আরও বলেন, গত ১৩ জুলাই সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে আজাদ তার এক বন্ধুর ফোন পেয়ে ঘর থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হয়। সর্বশেষ ১৪ জুলাই রাত সাড়ে ৮টার দিকে আজাদের মোবাইল ফোন থেকে মায়ের মোবাইলে একটি মেসেজ আসে। তাতে লেখা ছিলÑ ‘মা আমি শেষ।’

এর পরপরই তার পরিবারের পক্ষ থেকে মোবাইল ফোনে একাধিকবার চেষ্টা করেও কোনো খোঁজ পাওয়া যায়নি। ১৫ জুলাই চন্দনাইশ থানায় এ বিষয়ে জিডি করতে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়ার সময় দুপুর ২টার দিকে ফারুকের বাসায় পুলিশ আসে। তারা বাসায় তল্লাশি চালিয়ে কিছু না পেয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করার কথা বলে ফারুকে নিয়ে যায় এবং জিজ্ঞাসাবাদের পর তাকে ছেড়ে দেওয়া হবে বলে জানায় পুলিশ; কিন্তু রাত ৮টার দিকে জানতে পারি, ১৪ জুলাই ফারুকের বিরুদ্ধে টেকনাফ থানায় মামলা হয়েছে।

পরে টেকনাফ ও উখিয়া থানায় খবর নিয়ে জানা যায় ফারুক ও আজাদের বিরুদ্ধে কোনো মামলা হয়নি। ওইদিন রাত ১০টায় অজ্ঞাত নম্বর থেকে কল দিয়ে বলা হয়Ñ দাবিকৃত টাকা না দিলে আজাদ ও ফারুককে ‘ক্রসফায়ারে’ হত্যা করা হবে। গত ১৬ জুলাই সকাল ৭টার দিকে টেকনাফ থানা থেকে ফোন আসে কক্সবাজার সদর হাসপাতাল থেকে ফারুক ও আজাদের লাশ চিহ্নিত করে নিয়ে যাওয়ার জন্য। গত ১৮ জুলাই লাশ নিয়ে এসে চন্দনাইশের কাঞ্চননগরস্থ ৬ নম্বর ওয়ার্ডে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।

পরিবারের পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীসহ বিচার বিভাগ, মানবাধিকার কমিশনের কাছে ওসি প্রদীপ কুমারের বিরুদ্ধে নিহত আজাদ ও ফারুক হত্যার বিচার দাবি করা হয়েছে।

সুত্র. দৈনিক আমাদের সময় ।

জনপ্রিয় অনলাইন : বৈরুতে ভয়াবহ বিস্ফোরণে ব্যাপক হতাহতের ঘটনার জের ধরে লেবাননে চরম রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক টালমাটাল অবস্থার মধ্যে পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির তথ্যমন্ত্রী মানাল আবদেল সামাদ।

রোববার স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে মানাল নিজের পদত্যাগের বিষয়টি নিশ্চিত করেন বলে বার্তা সংস্থা এএফপি’র খবরে বলা হয়েছে।

বিবৃতিতে চলমান প্রেক্ষাপটে যথাযথভাবে দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ হওয়ায় লেবানিজ জনগণের কাছে ক্ষমাও চেয়েছেন মানাল। বিবৃতিতে এই নারী মন্ত্রী বলেন- “বৈরুতে বিরাট বিপর্যয়ের পরে আমি সরকার থেকে পদত্যাগের ঘোষণা দিচ্ছি।”

গত মঙ্গলবার রাজধানী বৈরুত বন্দরের পাশে ভয়াবহ এক বিস্ফোরণে ১৫০ জনের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়। এখনো নিখোঁজ অন্তত ৬০ জন। আহত হয়েছেন অন্তত ৬ হাজারের বেশি মানুষ।

এই বিস্ফোরণে চরম রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক সংকটে পড়েছে ভূ-মধ্যসাগরীয় দেশ লেবানন। মানালই প্রথম ব্যক্তি যিনি এই ঘটনার জের ধরে লেবানন সরকারের মন্ত্রী পরিষদ থেকে পদত্যাগ করলেন।

এদিকে, চলমান সংকট থেকে বের হতে আগাম জাতীয় নির্বাচনের ঘোষণা দিতে যাচ্ছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী হাসান দিয়াব।

জনপ্রিয় অনলাইন : দুর্নীতির একটি অভিযোগের তদন্ত শুরু হওয়ার পর ‘অজানার উদ্দেশে দেশ ছেড়েছেন’ স্পেনের সাবেক রাজা হুয়ান কার্লোস। স্পেনের রাজপ্রাসাদ সূত্রে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি এ তথ্য জানিয়েছে। তবে সাবেক এই রাজা এখন কোথায় বসবাস করবেন সেটি এখনও স্পষ্ট নয়।

ছয় বছর আগে ছেলের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করেন কার্লোস। সৌদি আরবে একটি দ্রুত গতির রেল প্রকল্প নির্মাণের চুক্তিতে কার্লোসের বিরুদ্ধে জুন মাসে দুর্নীতি অভিযোগ তদন্ত করার নির্দেশ দিয়েছিল স্পেনের সুপ্রিম কোর্ট।

বিবিসি জানিয়েছে, ৮২ বছর বয়সী সাবেক রাজা এক চিঠির মাধ্যমে তার ছেলে ফিলিপেকে দেশ ছাড়ার সিদ্ধান্তের কথা জানান। তিনি বলেছেন, তদন্তের জন্য যদি কথা বলার প্রয়োজন হয় তাহলে তার সঙ্গে যোগাযোগ করা যাবে।

গত ১৯৭৫ সালে স্পেনের স্বৈরশাসক জেনারেল ফ্রাঙ্কোর মৃত্যুর পর দেশটিকে গণতন্ত্রের পথে নিয়ে আসার ক্ষেত্রে হুয়ান কার্লোস বেশ দক্ষতার সঙ্গে নেতৃত্ব দিয়েছেন। রাজ সিংহাসনে ৪০ বছর থাকার পর ২০১৪ সালে তিনি ছেলের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করেন।

ছেলের কাছে লেখা চিঠিতে সাবেক এই রাজা বলেন, ‘স্পেনের জনগণ, প্রতিষ্ঠান এবং রাজা হিসেবে তুমি যাতে ভালো কাজ করতে পারো, সেজন্য আমি এখন দেশ ছেড়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

সৌদি আরবের মক্কা-মদিনা রেল প্রকল্পের জন্য ৬০০ কোটি ডলারের কাজ পায় স্পেনের একটি কোম্পানি। এরপর ২০১৪ সালে ক্ষমতা হস্তান্তরের পর সৌদি প্রকল্পের সাথে হুয়ান কার্লোসের দুনীতির সংশ্লিষ্টতা প্রমাণের উদ্যোগ নেয় দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। তিনি যতক্ষণ পর্যন্ত রাজা ছিলেন, ততক্ষণ পর্যন্ত তার দায়মুক্তি ছিল।

স্পেনের দুর্নীতি-বিরোধী কর্মকর্তারা সন্দেহ করেন, সাবেক এই রাজার কিছু অঘোষিত অর্থ সুইজারল্যান্ডের ব্যাংকে গচ্ছিত রয়েছে। সে দেশের সরকার বলেছে, ‘বিচার সবার জন্য সমান’ এবং তদন্তে সরকার কোনও ধরনের ‘হস্তক্ষেপ’ করবে না।

Your all gallery images here