2019-04-28


মিরন নাজমুল : স্পেনের দক্ষিণ-পশ্চিমে অবস্থিত প্রায় তিন হাজার বছরের পুরণো ইতিহাসে সমৃদ্ধ শহর মালগায় বসবাস করে প্রায় এক হাজার বাংলাদেশী। তাদের দ্বারে গিয়ে আগামী ১৭ ও ১৮ মে কনস্যুলার সেবা দেবে স্পেনের মাদ্রিদে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাস কতৃপক্ষ।

গত ২৯ এপ্রিল দূতাবাস কর্তৃপক্ষ এই মর্মে একটি জরুরী বিজ্ঞপ্তি প্রচার করেছে দূতাবাসের পেইজবুক পেজে। সেখানে উল্লেখ করা হয়েছে, আগামী ১৭ ও ১৮ মে যথাক্রমে শুক্র ও শনিবার মালাগা শহরের বেনালমাদেনা তে এই সেবা দেয়া হবে।
উল্লেখিত দুই দিনে দুপুর ১ টা থেকে বিকেল ৬টা পর্যন্ত কনস্যুলার সেবা দেয়া হবে। সেবার মধ্যে থাকবে- নতুন জন্ম নেয়া শিশুদের পাসপোর্টের আবেদন গ্রহন, যাদের ডিজিটাল পাসপোর্ট এখনো হয়নি তাদের পাসপোর্টের আবেদন ও ফিঙ্গারপ্রিন্ট গ্রহণ, সম্প্রতি মেয়াদোত্তীর্ণ ডিজিটাল পাসপোর্টের রি-ইস্যুর আবেদন গ্রহণ, সকল প্রকার ভিসার আবেদন গ্রহণ, বাংলাদেশীদের স্প্যানিশ পাসপোর্টে নো ভিসা রিকোয়ার্ড আবেদন গ্রহণ, পুলিশ ক্লিয়ারেন্সের আবেদন সত্যায়নসহ কাগজপত্র সত্যায়ন ও যাবতীয় সনদের আবেদন গ্রহণ। এই সেবা সংক্রান্ত কাজের বিস্তারিত তথ্য ও সহযোগিতার জন্য দূতাবাস কর্তৃপক্ষ হেল্পলাইন হিসেবে ৬১২৪৭২১৩৮ ও ৬৬৭১১১১৬৪ মোবাইল নাম্বার খুলে রেখেছে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, স্পেনের রাজধানী মাদ্রিদ ও বার্সেলোনায় সবচেয়ে বেশি বাংলাদেশী বসবাস করে। এর মধ্যে বার্সেলোনায় ২০১৫ সাল থেকে কনস্যুলার সেবা করা হয়েছে। এছাড়া স্পেনের অন্যান্য শহরগুলোতে কনস্যুলার সেবা পৌঁছে দেবার জন্যই মালাগাতে গত বছর থেকে এই কনস্যুলার সেবা শুরু করেছে। দূতাবাসের প্রথম সচিব (শ্রম) শরিফুল ইসলাম জানান, স্পেনের বিভিন্ন শহরে অবস্থানকরা বাংলাদেশীদের কনস্যুলার সেবা পৌঁছে দেবার জন্য দূতাবাস আন্তরিকভাবে কাজ করছে। আর তারই অংশ হিসেবে মালাগাতে কনস্যুলার সেবা পৌঁছে দেবার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। গত বছরের পর এই বছর এটাই প্রথম কনস্যুলার সেবা হবে মালাগাতে। তবে বাংলাদেশীদের সংখ্যা ও পরিস্থিতি বিবেচনায় প্রয়োজনে বছরে একাধিক বার কনস্যুলার সেবা দেয়ার প্রচেষ্টা আমাদের আছে

তিনি আরো জানান, ভবিষ্যতে দূতাবাস কর্তৃপক্ষ বাংলাদেশীদের বসবাস বেশি আছে এমন অন্যান্য শহরে গিয়ে কনস্যুলার সেবা প্রদানের উদ্যোগ নেবে।

জাফার হোসাইনঃ গত ২৮ ফেব্রুয়ারী, রবিবার স্পেনের বার্সেলোনায় সিরাকে মুস্তাকিম স্পেন কর্তৃক ''রমজানের তাৎপর্য ও আমাদের করণীয় শীর্ষক আলোচনা সভা ২০১৯ অনুষ্ঠিত হয়।
শহরের দারুল আমাল জামে মসজিদে সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টা থকে ইশা পর্যন্ত এই আরোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। সংগঠনের সভাপতি মাওলানা আব্দুল আহাদের সভাপতিত্বে ও মাওলানা আজমুল ইসলাম সেলিমের পরিচালনায় আলোচনার শুরুতে মাওলানা জাহিদ আহমদ ও ক্বারী মাসউদ আহমদ পবিত্র কুরআন থেকে তেলাওয়াত করেন।
প্রধান আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শায়খ হযরত মাওলানা তরিকুল উল্লাহ। এছাড়া রমজানের তাৎপর্য নিয়ে আলোচনা করেন মাওলানা মতিউর রহমান, মাওলানা আজমুল আলম  সেলিম, মাওলানা শরীফ উদ্দিন আযাদ, মাওলানা নুমান আহমদ। 
বক্তারা আমাদের জীবনে রমজানের তাৎপর্য তুলে ধরে পবীত্র রমজানে নেক আমল করার বিভিন্ন পন্থার বিষয়ে আলোচনা করেন।
প্রধান আলোচক শায়খ মাওলানা তরিক উল্লাহ বলেন, রমজান মাস হচ্ছে আল্লাহর সাথে সম্পর্ককে নিবিড় করার মাস। সিয়াম, তারাবিহ, সেহরি ও ইফতার সহ প্রত্যকটি আমল আল্লাহর সাথে সম্পর্ক গড়ার এক একটি মাধ্যম। এগুলো দ্বারা আল্লাহর সাথে গভীর সম্পর্ক পয়দা হয়। আল্লাহর সাথে যত বেশি সম্পর্ক হবে  তাক্বওয়া তথ বেশি অর্জিত হবে। সুতরাং পুরা রমজান মাসব্যপি এই আমলগুলার মাধ্যমে তাক্বওয়ার চর্চা করতে হবে। আর এটিই হচ্ছে রমজানের শিক্ষা।
আলোচনা সভায় বার্সেলোনার ধর্মপ্রাণ মুসাল্লিরা উপস্থিত ছিলেন।
আলোচনাশেষে মাওলানা তারিক উল্লাহ মুসলমান উম্মাহের জন্য বিশেষ মুনাজাতের মাধ্যমে আলোচনা শেষ করেন।


জাফার হোসাইনঃ স্পেনের বার্সেলোনায় এসোসিয়েশন কুলতোরাল উমানেতারিয়া দে বাংলাদেশ এন কাতালোনিয়া সংগঠনের পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল ২৮ এপ্রিল রবিবার রাত ১০টায় স্থানীয় মধুর ক্যান্টিন রেস্টুরেন্টে এই পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত হয়। 

২০০১ সালে সংগঠনটি প্রতিষ্ঠার পর থেকে এবারের নিয়ে পঞ্চম কার্যকরী পরিষদের নাম ঘোষণা করলো। উত্তম কুমারকে সভাপতি, শামীম হাওলাদারকে সাধারণ সম্পাদক এবং রাসেল হাওলাদারকে সাংগঠনিক সম্পাদক করে মোট ১১৭ সদস্যের কার্যকরী পরিষদ গঠন করা হয়। উক্ত পরিচিতি সভা অনুষ্ঠানে কমিউনিটির বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ ও সাংবাদিকবৃন্ধ উপস্থিত ছিলেন। 
সংগঠনের সিনিয়র সহসভাপতি শফিক খানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানের প্রথমে সাইদুর রহমান আয়নুল এর   পবিত্র কোরআন  তেলাওয়াতের মাধ্যমে অনুষ্ঠান শুরু হয়। এরপর কমিটির সদস্যগণকে ফুল দিয়ে বরণ করে নেয়া হয়। 
সংগঠনের সদস্য ও অতিথিবৃন্দের শুভেচ্ছা বক্তব্যের পর সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য আলাউদ্দিন হক নেসা এবং আউয়াল ইসলাম যৌথভাবে কার্যকরী কমিটির নাম ঘোষণা করেন।
কমিটি ঘোষণার পরে উপস্থিত অতিথিবৃন্দের সৌজন্যে নৈশভোজের আয়োজন করা হয়। পরে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে আমেরিকা থেকে আগত সংগীত শিল্পী ইমতিয়াজ বাবুসহ জিনাত শফিক, রাজু গাজী ও দিবার সংগীত পরিবেশনার মাধ্যমে পরিচিতি সভার সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।

Contact Form

Name

Email *

Message *

Powered by Blogger.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget