সৌদি আরবে নিহত হয়েছেন ৭ বাংলাদেশি: জেদ্দা কনস্যুলেট

জনপ্রিয় অনলাইন : সৌদি আরবের পশ্চিমাঞ্চলীয় জিজান প্রদেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলে সড়ক দুর্ঘটনায় ১০ বাংলাদেশি নিহতের খবর প্রচারিত হলেও এখন তা ৭ জন বলে নিশ্চিত করেছে দেশটির বাংলাদেশ দূতাবাস। দূতাবাসের জেদ্দা কনস্যুলেটের কনসাল জেনারেল এফ এম বোরহানউদ্দিন রবিবার বিকালে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

শনিবার সকালের ওই দুর্ঘটনায় এ পর্যন্ত (বাংলাদেশ সময় বিকাল ৫টা ২০ মিনিট) ৭ জন বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন। এছাড়াও ১৩ জন আহত হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। তবে আহতদের মধ্যে ৪ জনের অবস্থা গুরুতর। ওই দুর্ঘটনায় মোট ২০ জন বাংলাদেশি হতাহত হন।
তিনি বলেন, ঘটনাস্থল জেদ্দা থেকে অনেক দূরে এবং প্রত্যন্ত এলাকায় হওয়ায় সঠিক তথ্য পেতে আমাদেরও খুব অসুবিধা হচ্ছে। অন্যান্য মাধ্যমে এবং গণমাধ্যমের খবর শুনে আমরাও দুপুর পর্যন্ত ১০ জন নিহত হওয়ার কথা বলেছি। দূতাবাস থেকে এ বিষয়ে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিও দেওয়া হয়েছে। কিন্তু, পরে আমরা নিশ্চিত হতে পেরেছি ওই দুর্ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৭ জন মারা গেছেন। আর বাকি ১৩ জন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এদের মধ্যে ৪ জনের অবস্থা গুরুতর।
তিনি আরও জানান, ঘটনাস্থল জেদ্দা থেকে সাড়ে ৮০০ কিলোমিটার দূরে। জায়গাটি দুর্গম। আমাদের বিভিন্ন মাধ্যমে সংবাদ সংগ্রহ করতে হচ্ছে। তাই তথ্যে ঝামেলা হয়েছে। রিয়াদ থেকে দিনে মাত্র একটি ফ্লাইট জিজান এলাকায় যায়। আমাদের প্রতিনিধিরা ওই ফ্লাইটে ঘটনাস্থলের উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছে। পুরো তথ্য পেতে সময় লাগবে।
নিহতদের মরদেহ দেশে পাঠানো হবে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, নিহতদের পরিবার চাইলে তাদের মরদেহ দেশে পাঠানো হবে। তবে এ বিষয়ে কিছু প্রক্রিয়া রয়েছে যেমন সৌদি আরবের শ্রম মন্ত্রণালয়ের অনুমতি লাগবে, মরদেহগুলোর ময়নাতদন্ত করতে হবে। এ প্রতিবেদন হাতে পেতে হবে। এসব প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে কয়েকদিন দেরি হতে পারে।
নিহতরা ক্ষতিপূরণ পাওয়ার অধিকার রাখেন কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, যদি মৃত ব্যক্তিরা এ দুর্ঘটনার জন্য দায়ী না হয়ে থাকেন এবং তারা যদি আইনগতভাবে দেশটিতে অবস্থান করে থাকেন তবে তারা ক্ষতিপূরণ পেতে পারেন। তবে দুর্ঘটনাটি কার কারণে ঘটেছে সেটি জানতে আমাদের ট্রাফিক রিপোর্টের জন্য অপেক্ষা করতে হবে।

উল্লেখ্য, গতকাল শনিবার (৬ জানুয়ারি) সকাল ৮টায় জিজান প্রদেশের ওই ওলাকায় একটি ট্রাকে করে ২০ বাংলাদেশি কাজে যাচ্ছিলেন। পথে পেছন থেকে একটি গাড়ি তাদের ধাক্বা দিলে এ দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্গম এলাকা হওয়ায় তথ্যটি গণমাধ্যমে প্রচারিত হতে অনেক দেরি হয়ে যায়। বাংলাদেশ দূতাবাসও খবরটি আজ রবিবার পেয়েছে।

Post a Comment

Contact Form

Name

Email *

Message *

Powered by Blogger.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget