বিয়ানীবাজারে জনতার হাতে ৩ গরু চোঁর আটক গডফাদারের নাম প্রকাশ ॥ একজনকে ছেড়ে দেয়ার অভিযোগ

সুফিয়ান আহমদ, বিয়ানীবাজার প্রতিনিধিঃ বিয়ানীবাজারের মুড়িয়া ইউনিয়নের ঘুঙ্গাদিয়া গ্রাম থেকে জনতা তিন গরু চোঁরকে হাতেনাতে আটক করে থানা পুলিশের হাতে হস্তান্তর করেছে। ধৃত চোঁরেরা তাদের গডফাদারের নাম প্রকাশ্যে বলে দেয়ায় এনিয়ে এলাকায় চলছে তোঁলপাড়। পুলিশ আটক দুজনসহ গডফাদার গিয়াস উদ্দিনের নাম উল্লেখ করে মামলা করলেও আটককৃত একজনকে ছেঁড়ে দিয়েছে। পুলিশের কৌশলী এজাহার মামলা হিসেবে গণ্য করার বিষয়ে এলাকায় মিশ্রপ্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার বিকালে মুড়িয়া ইউনিয়নের ঘুঙ্গাদিয়া এলাকার স্থানীয় জনগন গরু চুরির অভিযোগে  একই গ্রামের  লুৎফুর রহমানের পুত্র ছালেক হোসেন (৩০) ও আব্দুল কাদিরের পুত্র রুহেল আহমদসহ অপর একজনকে আটক করে তাদের উত্তম মাধ্যম দিয়ে থানা পুলিশের হাতে তুলে দেয়। এসময় পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে তারা তাদের গডফাদার হিসেবে গিয়াস উদ্দিনের নাম প্রকাশ করে। অভিযোগ রয়েছে পুলিশ, গিয়াস উদ্দিনের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা নিয়ে গিয়াস উদ্দিনের নাম এজাহারে উল্লেখ করলেও রহস্যজনক কারণে তার পিতার নাম উল্লেখ করে নি। এছাড়া আটক তিনজনের মধ্যে একজনকে ছেড়ে দেয়া হয়। যা নিয়ে এলাকায় চলছে কাঁনাঘোষা।

এব্যাপারে বিয়ানীবাজার থানার অফিসার ইনচার্জ চন্দন কুমার চক্রবর্তী জানান, স্থানীয় জনগন চোরকে আটক করে আমাদের জানালে আমরা তাদেরকে আটক করে থানায় নিয়ে আসি, তারা গরু চুরির সাথে জড়িত বলে প্রাথমিকভাবে স্বীকারোক্তি দিয়েছে। তবে একজনকে ছেড়ে দেয়ার বিষয়টি তিনি স্বীকার করে বলেন, সে চোঁর না হওয়ায় তাকে ছেড়ে দিয়েছি।

Post a Comment

Contact Form

Name

Email *

Message *

Powered by Blogger.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget