বাহার উদ্দিন বকুল,জেদ্দা, সৌদি আরব : নতুন সুর্য নতুন বছর,নতুন ভাবে নতুন আলো, সেই খুশিতে জেদ্দা বৈশাখী সামাজিক সাংস্কিতিক সংগঠন আয়োজন করে বৈশাখী মেলা ১৪২৩ বঙ্গাব্দ।
আবহমান বাংলার চিরাচরিত ঐতিহ্য ধারাবাহিকতায় গত (২৯এপ্রিল) শুক্রবার জেদ্দার একটি পিকনিক স্পটে জেদ্দা বৈশাখী সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন আয়োজন করে প্রান বৈশাখী মেলা উৎসব ১৪২৩ বঙ্গাব্দ।
বৈশাখী উৎসবে স্কুলের ছাত্র-শিক্ষক-অভিভাবক, জেদ্দা-মক্কার সর্বস্তরের সামাজিক-সাংস্কৃতিক ও রাজনৈতিক অঙ্গণের নেতৃবর্গ সপরিবারে অংশগ্রহণ করেন। ছিলেন সাধারণ প্রবাসীরাও। এ যেন প্রবাসীদের মিলনমেলা, প্রবাসে এক টুকরো স্বাদেশ।

মেলায় ছিল খাবার স্টল  হরেক রকম পিঠা-পুলি, কাঁচা আমের ভর্তা, খিচুড়ি সহ স্বদেশী আমেজে ভরপুর ছিল স্টলগুলো।

শারতাজুল আলম দিপু ও ফজলুল কবির ভিকুর যৌথ পরিচালনায়, বৈশাখী মেলা উদ্বোধনী বক্তব্য রাখেন দেলোয়ার হোসেন সরকার। অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন জাকির  হোসেন। প্রধান অথিতি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,  জেদ্দা কনসুলেটের মান্যবর কনসাল জেনারেল এ.কে.এম শহিদুল করীম।
বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, কাউন্সিলর মোঃ মোকাম্মেল হোসেন। রাজনৈতিক ও সামাজিক-সাংস্কৃতিক অঙ্গণের নেতৃবর্গ উপস্থিত ছিলেন এ্যাডভোকেট মাহমুদুর হাসান শামীম, ইউসুফ মাহমুদ ফরাজী, কাজী নওফেল, কাজী নেয়ামুল বশির,আবুল বাশার বুলবুল, মোহাম্মদ হুমায়ূন কবীর, খন্দকার আবুল কালাম আজাদ, শাহবুদ্দিন প্রমুখ।

বৈশাখকে বরণ করতে বাংলা স্কুল এবং ইংরেজি স্কুলের ছাত্রছাত্রী এবং জেদ্দার সাংস্কৃতিক অঙনের শিল্পীরা পরিবেশন করে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব মাহফুজুর রহমান, মিজানুর রহমান, রমজান, সেলিম লাবলু অত্যন্ত প্রাজ্ঞতার সাথে একটি সুস্থ্য বিনোদনমূলক সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা উপহার দেন।