রবি পেসার হান্টে মেট্রপলিটন ইউনিভার্সিটির দুই চমক!

আবিদুল ইসলাম রিমন: চমকের ওপর নাম সিলেটের মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি।সিলেটের সবকটি প্রাইভেট ইউনিভার্সিটির মধ্যে র‍্যংকিং এ নাম্বার ওয়ান স্বীকৃতি অনেক আগেই পেয়েছিলো তারা।তবে 

তাতে তারা ক্লান্ত হয়নি।একের পর এক তথ্য প্রযুক্তি তৈরি করে তারা যেমন দেশকে তথ্য প্রযুক্তি খাতে সমৃদ্ধ করার চেষ্ঠা করছে,ঠিক তেমনি তথ্য প্রযুক্তি নিয়ে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে সিলেটের এক মাত্র প্রাইভেট ইউনিভার্সিটি হিশেবে বাংলাদেশের প্রতিনিধি হয়ে লড়াই করে বয়ে এনেছে দেশের জন্য সম্মান। তবে শীঘ্রই মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি হয়তো দেশের জন্য লড়াই করার আবার সুযোগ পেয়ে যাচ্ছে।তবে সেটা তথ্য প্রযুক্তিতে নয়,বাংলাদেশ জাতীয় দলের গর্বীত সদস্য হয়ে!কি চমকে গেলেন?তাহলে শুনেন।রবি পেসার হান্টের যথাক্রমে দ্বিতীয় এবং পঞ্চম হয়েছে মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি ক্রিকেট দলের গতি তারকা ইমরান আলী এনাম এবং বুলেট খালেদ। জনপ্রিয়২৪ডটকমের সাথে একান্ত আলাপে ভার্সিটির ডিরেক্টর(প্রশাসন) তারেক ইসলাম বলেন,এনাম এবং খালেদ দুজনই মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থী এবং টিম মেট্রোপলিটনের তারকা ক্রিকেটার।গত কয়েক বছর ধরে তারা টিম মেট্রপলিটিনের হয়ে বিভিন্ন টুর্নামেন্টে দুর্দান্ত বোলিং করে আসছে।পাশাপাশি তারা জাতীয় লিগেও খেলছে।সেই হিশেবে তাদের নিয়ে আমাদের প্রত্যাশা ছিল।ভাল লাগতেছে আমাদের প্রত্যাশা পূরণ হতে দেখে। জাতীয় লীগে টিম মেট্রোপলিটনের আরো পাঁচ জন ক্রিকেটার খেলেন জানিয়ে তিনি আরো বলেন,আমাদের ভার্সিটির সর্বমোট পাঁচজন ক্রিকেটার জাতীয় লীগে খেলেন।তাদের নিয়েও আমরা আশাবাদী।পাশাপাশি আমাদের একটি ফুটবল টিম আছে। আমরা কোচ দিয়ে তাদেরও প্র্যাক্টিসের ব্যবস্থা করেছি।আশাকরি ক্রিকেটের মতো ফুটবলেও আমরা চমক দিতে পারবো। তিনি আরো বলেন,মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি শুধু শিক্ষার্থীদের পড়ালেখার জন্য নয়,প্রতিভা বিকাশের প্ল্যাটফর্ম হিশেবে কাজ করতে চায়।

Post a Comment

Contact Form

Name

Email *

Message *

Powered by Blogger.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget