ঢাকা ০৭:২৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪, ৭ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
স্পেনে ঐতিহাসিক মুজিব নগর দিবস উদযাপন মহিলা সমিতি বার্সেলোনার পহেলা বৈশাখ উদযাপন বাংলাদেশ কোলতোরাল এসোসিয়েশন এন কাতালোনিয়ার ৯ সদস্য বিশিষ্ট সমন্বয় কমিটি গঠন টেনেরিফে ঈদুল ফিতর উদযাপন ও ঈদ পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠিত শান্তাকলমায় শরীয়তপুর জেলা সমিতির ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্টিত নোয়াখালী এসোসিয়েশনের ইফতার মাহফিল সম্পন্ন বার্সেলোনায় গোলাপগঞ্জ অ্যাসোসিয়েশনের ইফতার সম্পন্ন বিয়ানীবাজার পৌরসভা ওয়েলফেয়ার ট্রাষ্ট বার্সেলোনার ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্টিত বার্সেলোনায় বিয়ানীবাজার ইয়াং স্টারের ইফতার সম্পন্ন বার্সেলোনা কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে তাফসীরুল কুরআন ও ইফতার মাহফিল অনুষ্টিত

ভারত পাকিস্তান ভালো বন্ধু হবে, এটাই আমার স্বপ্ন: মালালা

জনপ্রিয় অনলাইন
  • আপডেট সময় : ০৩:২৯:২৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২ মার্চ ২০২১ ৭৪৮ বার পড়া হয়েছে

ভারত ও পাকিস্তান একে অপরের চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী। স্বাধীনতার পর থেকে দেশ দু’টি একাধিকবার যুদ্ধে জড়িয়েছে। আবার কাশ্মীর নিয়েও উভয় দেশের মধ্যে আছে উত্তেজনা। তবে এতো কিছুর পরও ভারত ও পাকিস্তানকে সত্যিকারের বন্ধু হিসেবে দেখাটা নিজের স্বপ্ন বলে জানিয়েছেন পাকিস্তানি মানবাধিকার কর্মী ও নোবেলজয়ী মালালা ইউসুফজাঈ।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য হিন্দু জানিয়েছে, রোববার জয়পুর সাহিত্য উৎসবে ভার্চ্যুয়ালি যোগ দেন নোবেল শান্তি পুরস্কারজয়ী মালালা। সেখানে তিনি বলেন, ‘আপনারা ভারতীয়, আমি পাকিস্তানি। আমরা আমাদের মতো ভালো আছি। তাহলে এতো বিদ্বেষ কেন? সীমান্ত, বিভাজন এবং বিভাজনের মাধ্যমে আলাদা করে জয় করা- এসব পুরনো দর্শন এখন আর কাজ করে না।’

তিনি আরও বলেন, ‘মানুষ হিসেবে আমরা সবাই শান্তিতে থাকতে চাই। ভারত ও পাকিস্তানের আসল শত্রু হল– দারিদ্র, বৈষম্য ও অসাম্য। নিজেদের মধ্যে লড়াই না করে দুই দেশের উচিত এই শত্রুগুলোর বিরুদ্ধে যৌথভাবে লড়াইয়ে নামা। ভারত ও পাকিস্তানকে একে অপরের সত্যিকারের বন্ধু হিসেবে দেখতে চাই আমি।’

ভারতীয়রা এবং পাকিস্তানিরা একে অপরের দেশে যেতে পারবে; এটা দেখতে পারাও আমার স্বপ্ন। আপনারা (ভারতীয়রা) পাকিস্তানি নাটক দেখবেন। আর আমরা বলিউডের সিনেমা দেখবো। এছাড়া একে অপরের ক্রিকেট ম্যাচও উপভোগ করবো আমরা

মালালা ইউসুফজাঈ

উল্লেখ্য, ২০১২ সালে সন্ত্রাসীদের হামলার শিকার হন মালালা ইউসুফজাঈ। সেই ঘটনায় সারা বিশ্বে আলোড়ন সৃষ্টি হয়। তখন মালালা ছিলেন স্কুলছাত্রী।

এরপর সুস্থ হয়ে নারীদের শিক্ষার অধিকার প্রতিষ্ঠার আন্দোলন থেকে শুরু করে বৈষম্য ও সংখ্যালঘু নিপীড়নের বিরুদ্ধে কাজ করে চলেছেন তিনি। আর এবার ভারত-পাকিস্তানের দীর্ঘদিনের শত্রুতাপূর্ণ সম্পর্ক নিয়েও কথা বললেন শান্তিতে নোবেলজয়ী এই মানবাধিকার কর্মী।

সূত্র: দ্য হিন্দু

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

ভারত পাকিস্তান ভালো বন্ধু হবে, এটাই আমার স্বপ্ন: মালালা

আপডেট সময় : ০৩:২৯:২৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২ মার্চ ২০২১

ভারত ও পাকিস্তান একে অপরের চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী। স্বাধীনতার পর থেকে দেশ দু’টি একাধিকবার যুদ্ধে জড়িয়েছে। আবার কাশ্মীর নিয়েও উভয় দেশের মধ্যে আছে উত্তেজনা। তবে এতো কিছুর পরও ভারত ও পাকিস্তানকে সত্যিকারের বন্ধু হিসেবে দেখাটা নিজের স্বপ্ন বলে জানিয়েছেন পাকিস্তানি মানবাধিকার কর্মী ও নোবেলজয়ী মালালা ইউসুফজাঈ।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য হিন্দু জানিয়েছে, রোববার জয়পুর সাহিত্য উৎসবে ভার্চ্যুয়ালি যোগ দেন নোবেল শান্তি পুরস্কারজয়ী মালালা। সেখানে তিনি বলেন, ‘আপনারা ভারতীয়, আমি পাকিস্তানি। আমরা আমাদের মতো ভালো আছি। তাহলে এতো বিদ্বেষ কেন? সীমান্ত, বিভাজন এবং বিভাজনের মাধ্যমে আলাদা করে জয় করা- এসব পুরনো দর্শন এখন আর কাজ করে না।’

তিনি আরও বলেন, ‘মানুষ হিসেবে আমরা সবাই শান্তিতে থাকতে চাই। ভারত ও পাকিস্তানের আসল শত্রু হল– দারিদ্র, বৈষম্য ও অসাম্য। নিজেদের মধ্যে লড়াই না করে দুই দেশের উচিত এই শত্রুগুলোর বিরুদ্ধে যৌথভাবে লড়াইয়ে নামা। ভারত ও পাকিস্তানকে একে অপরের সত্যিকারের বন্ধু হিসেবে দেখতে চাই আমি।’

ভারতীয়রা এবং পাকিস্তানিরা একে অপরের দেশে যেতে পারবে; এটা দেখতে পারাও আমার স্বপ্ন। আপনারা (ভারতীয়রা) পাকিস্তানি নাটক দেখবেন। আর আমরা বলিউডের সিনেমা দেখবো। এছাড়া একে অপরের ক্রিকেট ম্যাচও উপভোগ করবো আমরা

মালালা ইউসুফজাঈ

উল্লেখ্য, ২০১২ সালে সন্ত্রাসীদের হামলার শিকার হন মালালা ইউসুফজাঈ। সেই ঘটনায় সারা বিশ্বে আলোড়ন সৃষ্টি হয়। তখন মালালা ছিলেন স্কুলছাত্রী।

এরপর সুস্থ হয়ে নারীদের শিক্ষার অধিকার প্রতিষ্ঠার আন্দোলন থেকে শুরু করে বৈষম্য ও সংখ্যালঘু নিপীড়নের বিরুদ্ধে কাজ করে চলেছেন তিনি। আর এবার ভারত-পাকিস্তানের দীর্ঘদিনের শত্রুতাপূর্ণ সম্পর্ক নিয়েও কথা বললেন শান্তিতে নোবেলজয়ী এই মানবাধিকার কর্মী।

সূত্র: দ্য হিন্দু