ঢাকা ০২:১৩ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

বুলেটপ্রুফ কন্টেনার থেকেই জনসভায় বক্তৃতা ইমরান খানের

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৬:১৪:২৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৬ মার্চ ২০২৩ ২০৩ বার পড়া হয়েছে

বাড়ির বাইরে বেরলেই খুন হয়ে যাবেন বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। আগেও সমাবেশ চলাকালীন গুলি চালানো হয়েছিল পিটিআই প্রধানের উপর। সেই কারণে বুলেটপ্রুফ কন্টেনারের মধ্যে থেকে জনসভায় ভাষণ দেয়ার সিদ্ধান্ত নিলেন ইমরান। লাহোরের এই জনসভায় কন্টেনারের মধ্যে থেকেই বক্তৃতা দিয়েছেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী।

ইতিমধ্যেই পাকিস্তান প্রশাসনের তরফে জানানো হয়েছে, বড় মাপের রাজনৈতিক সভাগুলিকে নিশানা করছে জঙ্গি গোষ্ঠীগুলি। লাহোরে ইমরানের সভাতেও হামলার ছক রয়েছে বলে অনুমান পাকিস্তানের গোয়েন্দাদের। বিস্ফোরক নিয়ে সভাস্থলের আশেপাশে পৌঁছে গিয়েছে জঙ্গিরা, এমনটাও অনুমান করা যাচ্ছে। তবে জঙ্গি হানার আশঙ্কা উড়িয়ে দিয়ে সভা করার সিদ্ধান্ত নেন ইমরান খান।

জানা গিয়েছে, রবিবার লাহোরের জলসা গ্রাউন্ডে ইমরানের সভার জন্য নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তার ব্যবস্থা করেছিল পাঞ্জাবের প্রশাসন। সরকারের নির্দেশেই ইমরানের জন্য বিশেষ বুলেটপ্রুফ কন্টেনার রাখা হয়েছিল। সভায় যোগদানের জন্য সমর্থকদের উপর অবশ্য কোনও নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়নি। তবে নিরাপত্তার ক্ষেত্রে ব্যাপক কড়াকড়ি ছিল বলেই জানা গিয়েছে। লাহোরের একাধিক রাস্তাও বন্ধ করে দিয়েছিল স্থানীয় প্রশাসন।

যদিও ইমরানের দলের দাবি, আসলে সমর্থকদের আটকাতেই জঙ্গি হামলার ভুয়া আশঙ্কার কথা প্রচার করছে সরকার। কারণ ইমরানকে ভয় পাচ্ছে নেতারা। সেই জন্যই প্রায় ৫০ জন পিটিআই নেতাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বুলেটপ্রুফ কন্টেনারের বদলে স্বাভাবিকভাবে যেন সভা করতে পারেন ইমরান, সেই আবেদনও জানানো হয়েছে। তবে পিটিআই নেতা শাহ মামমুদ কুরেশি আশাবাদী, সমস্ত বাধা সত্ত্বেও সমর্থকরা সভায় আসবেন। সূত্র: ভয়েস অব আমেরিকা।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

বুলেটপ্রুফ কন্টেনার থেকেই জনসভায় বক্তৃতা ইমরান খানের

আপডেট সময় : ০৬:১৪:২৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৬ মার্চ ২০২৩

বাড়ির বাইরে বেরলেই খুন হয়ে যাবেন বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। আগেও সমাবেশ চলাকালীন গুলি চালানো হয়েছিল পিটিআই প্রধানের উপর। সেই কারণে বুলেটপ্রুফ কন্টেনারের মধ্যে থেকে জনসভায় ভাষণ দেয়ার সিদ্ধান্ত নিলেন ইমরান। লাহোরের এই জনসভায় কন্টেনারের মধ্যে থেকেই বক্তৃতা দিয়েছেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী।

ইতিমধ্যেই পাকিস্তান প্রশাসনের তরফে জানানো হয়েছে, বড় মাপের রাজনৈতিক সভাগুলিকে নিশানা করছে জঙ্গি গোষ্ঠীগুলি। লাহোরে ইমরানের সভাতেও হামলার ছক রয়েছে বলে অনুমান পাকিস্তানের গোয়েন্দাদের। বিস্ফোরক নিয়ে সভাস্থলের আশেপাশে পৌঁছে গিয়েছে জঙ্গিরা, এমনটাও অনুমান করা যাচ্ছে। তবে জঙ্গি হানার আশঙ্কা উড়িয়ে দিয়ে সভা করার সিদ্ধান্ত নেন ইমরান খান।

জানা গিয়েছে, রবিবার লাহোরের জলসা গ্রাউন্ডে ইমরানের সভার জন্য নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তার ব্যবস্থা করেছিল পাঞ্জাবের প্রশাসন। সরকারের নির্দেশেই ইমরানের জন্য বিশেষ বুলেটপ্রুফ কন্টেনার রাখা হয়েছিল। সভায় যোগদানের জন্য সমর্থকদের উপর অবশ্য কোনও নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়নি। তবে নিরাপত্তার ক্ষেত্রে ব্যাপক কড়াকড়ি ছিল বলেই জানা গিয়েছে। লাহোরের একাধিক রাস্তাও বন্ধ করে দিয়েছিল স্থানীয় প্রশাসন।

যদিও ইমরানের দলের দাবি, আসলে সমর্থকদের আটকাতেই জঙ্গি হামলার ভুয়া আশঙ্কার কথা প্রচার করছে সরকার। কারণ ইমরানকে ভয় পাচ্ছে নেতারা। সেই জন্যই প্রায় ৫০ জন পিটিআই নেতাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বুলেটপ্রুফ কন্টেনারের বদলে স্বাভাবিকভাবে যেন সভা করতে পারেন ইমরান, সেই আবেদনও জানানো হয়েছে। তবে পিটিআই নেতা শাহ মামমুদ কুরেশি আশাবাদী, সমস্ত বাধা সত্ত্বেও সমর্থকরা সভায় আসবেন। সূত্র: ভয়েস অব আমেরিকা।